ক্রিকেটার ইমরুল কায়েসের বাবা মারা গেছেন






বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের অন্যতম ওপেনার ইমরুল কায়েসের পিতা প্রায় এক মাস মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে হেরে গেলেন বানি আমিন বিশ্বাস (৬০)। রোববার (১৯ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৯টা ১৫ মিনিটের দিকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হওয়ায় হাসপাতাল ভর্তি করা হয়েছিল ক্রিকেটার ইমরুল কায়েসের বাবাকে। সেই হাসপাতাল থেকে আর বাড়ি ফেরা হলো না। তার মৃত্যুর বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন ইমরুলের মামাতো ভাই রনি।

গত ২৩ মার্চ মেহেরপুরে ইমরুল কায়েসের বাবা সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হন। তিনি মেহেরপুরের উজ্জলপুর গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে মোটরসাইকেলে করে মেহেরপুর শহরে যাচ্ছিলেন। এসময় পথে ছহিউদ্দিন ডিগ্রি কলেজের পাশে একটি আলমসাধুর (নছিমন) সঙ্গে ধাক্কায় আহত হন বানি আমিন বিশ্বাস। স্থানীয়রা তাকে আঘাতপ্রাপ্ত অবস্থায় ভর্তি করে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে। পরে সেখান থেকে তাকে চিকিৎসকের পরামর্শে নেয়া হয় কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে এবং একইদিনই শারীরিক পরিস্থিতির অবনতি হলে হেলিকপ্টারযোগে তাকে ঢাকায় নিয়ে যান ইমরুল কায়েস। দুর্ঘটনায় বানি আমিনের একটি পা ভেঙে যায় এবং তিনি কানে আঘাত পেয়েছিলেন।




বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) গত প্রায় একমাস ধরে চিকিৎসা চলছিল তার। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ডাক্তারদের সব চেষ্টা ব্যর্থ করে দিয়ে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। এ খবরে মেহেরপুরে শোকের ছায়া নেমে আসে।

জানা যায়, আজ রাতেই তাকে নিজ বাড়ি মেহেরপুর সদর উপজেলার উজ্জলপুরে নিয়ে যাওয়া হবে। আর দাফন সম্পন্ন হবে আগামীকাল।

এদিকে ইমরুলের বাবার মৃত্যুতে ফেসবুকে পোস্টের মাধ্যমে শোকপ্রকাশ করেছেন করেছেন তার সতীর্থরা।

Post a Comment

0 Comments